Alexa

কালবৈশাখীর প্রবণতা বাড়ছে, নদীতে ১ নম্বর সতর্কতা

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

রাজধানীতে হঠাৎ বৃষ্টিতে জনজীবনে কিছুটা অস্বস্তি/ছবি: শাকিল

ঢাকা: গত দু’দিন কিছুটা বিরতি দিয়ে আবারো বাড়ছে কালবৈশাখী ঝড়ের প্রবণতা। আগামী তিনদিন দেশের ওপর দিয়ে কম-বেশি সব জায়গায় এ ঝড় বয়ে যাবে। তবে সম্ভাবনা নেই ভারী বৃষ্টির।

আবহাওয়াবিদ মিজানুর রহমান বাংলানিউজকে জানান, কালবৈশাখী ঝড়ের কারণে বর্তমানে ঢাকা, ময়মনসিংহ, ফরিদপুর, মাদারীপুর, নোয়াখালী অঞ্চলের ওপর দিয়ে দমকা হাওয়া/ঝড়ো হাওয়া বয়ে যাচ্ছে।
 
আগামী ৩ থেকে ৪ দিন এই প্রবণতা বাড়তি থাকবে। এরপর আবার কমবে। এভাবেই পুরো মৌসুম চলবে। এই চারদিন কোথাও বাতাস কম হলে বৃষ্টি বেশি হবে। সঙ্গে থাকবে বজ্রপাত ও শিলাবৃষ্টি।
ঝড়ে পড়ে গেছে বিলবোর্ড 
দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে বাংলানিউজের করেসপন্ডেন্টরা জানান, রাজধানী ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে কালবৈশাখীর হঠাৎ হানায় অপ্রস্তুত হয়ে পড়েছেন সাধারণ মানুষ। বজ্রসহ বৃষ্টিপাতের সঙ্গে শিলাবৃষ্টিও হয়েছে বেশিরভাগ জায়গায়।
 
আবহাওয়া অফিস জানিয়েছে, পশ্চিমা লঘুচাপের বর্ধিতাংশ গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গ ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থান করছে। মৌসুমের স্বাভাবিক লঘুচাপ অবস্থান করছে দক্ষিণ বঙ্গোপসাগরে।
 
এ অবস্থায় সৃষ্ট কালবৈশাখী ঝড়ের কারণে ঢাকা, ফরিদপুর, মাদারীপুর, নোয়াখালী, ময়মনসিংহ, রংপুর, পাবনা, টাঙ্গাইল, কুমিল্লা, অঞ্চলগুলোর ওপর পশ্চিম/উত্তর-পশ্চিম দিক থেকে ঘণ্টায় ৪৫ থেকে ৬০ কিলোমিটার বেগে অস্থায়ীভাবে দমকা/ঝড়ো হাওয়া বয়ে যেতে পারে। এসব এলাকার নদী বন্দরগুলো এক নম্বর সতর্কতা সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে। তবে সমুদ্রবন্দরে কোনো সতর্কতা সংকেত নেই।
 
বাংলাদেশ সময়: ১৬২৩ ঘণ্টা, এপ্রিল ০৪, ২০১৮
ইইউডি/এএ

মা-বাবার সঙ্গে বাঁধনহারা আনন্দে শিশুরা
ঈদের ছুটি শেষে জনস্রোত এখন কর্মস্থলমুখী 
বিএনপির গতিবিধি বুঝে জাপার সঙ্গে আ’লীগের আসন সমঝোতা
ত্রিপুরায় আবারো সাংবাদিকের ওপর হামলা
বলেশ্বরের বুকে জেগে ওঠা ‘বিহঙ্গ দ্বীপ’