Alexa

কলকাতার ৮ উপভোগ্য স্থান 

​ফিচার ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

ইন্ডিয়ান মিউজিয়াম

পরিবার নিয়ে ভ্রমণের সময় ইচ্ছে থাকে যেন স্বাচ্ছন্দ্য ও অনন্দের সঙ্গে ভ্রমণটা সম্পন্ন হয়। আর যদি কলকাতা যাওয়ার ইচ্ছে থেকে  তবে অবশ্যই এই আটটি স্থান থেকে ঘুরে আসার কথা ভাবতে পারে। এ স্থানগুলোতে পরিবার নিয়ে হেসেখেলে বেড়াতে পারবেন এবং আপনার পরিবার-সন্তানরাও পাবে সজীবতা ও আনন্দ।

নেহেরু চিল্ড্রেন্স জাদুঘর 
কলকাতায় আপনার ছেলেমেয়ে নিয়ে যাওয়ার জন্য সবচেয়ে ভালো জায়গা হলো নেহেরু চিল্ড্রেন্স জাদুঘর। জাদুঘরটি ১৯৭২ সালে উদ্বোধন হয়। এখানে প্রায় ৪৪টি দেশ থেকে সংগৃহীত অসংখ্য পুতুল রয়েছে। এই জাদুঘরটি স্থাপনের পরিকল্পনায় ছিলেন স্বপ্নদর্শী শ্রী যুগল স্লীমাল। তার মূল উদ্দেশ্য ছিল বিনোদনের মাধ্যমে জ্ঞান দেওয়া। যাদুঘরটি চারটিভাগে বিভক্ত। পুতুলের গ্যালারি, খেলনার গ্যালারি, রামায়ণ গ্যালারি, মহাভারত গ্যালারি। ‘খেলনা গ্যালারি’ বিশ্বের অনেক দেশেই প্রশংসিত। 

বিরলা ইন্ডাস্ট্রিয়াল অ্যান্ড টেকনোলজিক্যাল মিউজিয়াম
জাদুঘরটি ১৯৫২ সালে প্রতিষ্ঠিত। আপনি যদি ইজ্ঞান-প্রেমী কিংবা বিজ্ঞানের প্রতি একটু কৌতুহলী হয়ে থাকে তাহলে অবশ্যই এ জাদুঘরটি ঘুরে যাবেন। 

ইন্ডিয়ান মিউজিয়াম
১৮১৪ সালে প্রতিষ্ঠিত এই জাদুঘরটিকে এশিয়া তথা বিশ্বের সবচেয়ে পুরানো জাদুঘরগুলোড় একটি হিসেবে ধরা হয়।

অক্সফোর্ড বুকস্টোর
এই বুকশপে শিশুদের জন্য রয়েছে আলাদা জায়গা। এছাড়া চা পানের ব্যবস্থা, পড়ার কক্ষ, পদর্শনী আয়োজনের জন্যেও আলাদা আলাদা ব্যবস্থা রয়েছে।

বোটানিক্যাল গার্ডেন
এখানে রয়েছে ২৫০ বছরের পুরনো একটি বটগাছ। এই বটগাছটির জন্যই স্থানটি এতো বিখ্যাত। প্রায় দুই শতাব্দীর পুরনো ও বিশাল এই গার্ডেনে একটি সুন্দর পুকুরও রয়েছে।
বোটানিক্যাল গার্ডের ২৫০ বছরের সেই বট গাছ। ছবি: সংগৃহীত
হাওড়া ব্রিজ

কলকাতার সবচেয়ে সুন্দর ও স্নিগ্ধ একটি ব্রিজ। এটি বড়ছোট সবার জন্য উপভোগ্য একটি জায়গা। 

ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়াল 
এটি একটি অতি পুরনো ও ঐতিহাসিক জায়গা। কেবল বড়রাই নয় শিশুরাও এখানে গেলে উপভোগ করবে। 

প্রিন্সেপ ঘাট
এটি সম্ভবত কলকাতার সবচেয়ে পুরনো একটি ভ্রমণকেন্দ্র। বড়দের পাশাপাশি শিশুদের মনেও প্রফুল্লতা এনে দেবে এ স্থানটিতে। এখানে পথেই বিভিন্ন মজার খাবার পাওয়া যায় খুবই লোভনীয়। 

বাংলাদেশ সময়: ১৬০৪ ঘণ্টা, জুন ০৮, ২০১৮
এনএইচটি

ফিরতি পথেও লঞ্চে অতিরিক্ত যাত্রী নিয়ন্ত্রণে ব্যবস্থা
দুর্ভোগ না কমা পর্যন্ত ত্রাণ দেওয়া অব্যাহত থাকবে
শিয়াল মারার ফাঁদে পা আটকে বৃদ্ধার মৃত্যু 
কোটালীপাড়ায় খাল থেকে স্কুলছাত্রের মরদেহ উদ্ধার
টেকনাফে চাঁদের গাড়ি-সিএনজি সংঘর্ষে চালক নিহত