Alexa

নাজিবের মেগা প্রজেক্ট বাতিলের সিদ্ধান্ত মাহাথিরের

আন্তর্জাতিক ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

মাহাথির মোহাম্মদ ও নাজিব তুন রাজাক

ঢাকা: মালয়েশিয়ার সাধারণ নির্বাচনে সদ্য পরাস্ত নাজিব সরকারের মেগা প্রকল্পগুলো বাতিলের নীতিগত সিদ্ধান্ত নিয়েছে মাহাথির সরকার। খোঁজা হচ্ছে প্রকল্পগুলো বাতিল করলে কী কী সুবিধা হতে পারে।

বর্তমান সরকার এরইমধ্যে আগের সরকারের নেওয়া সবগুলো মেগা প্রজেক্ট পুনর্মূল্যায়ন শুরু করেছে। এক্ষেত্রে প্রথমেই ‘কুয়ালালামপুর-সিঙ্গাপুর হাই স্পিড রেল (এইচএসআর)’ প্রকল্প এবং ইস্ট কোস্ট রেল লিংক (ইসিআরএল)’ প্রকল্প দু’টি বাতিলের কথা ভাবা হচ্ছে।

মালয়েশিয়ার অর্থমন্ত্রী আজমিন আলী গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন, তার সরকার এইচএসআর এবং ইসিআরএলসহ মেগা প্রকল্পগুলো বাতিলের ইতিবাচক প্রভাব মূল্যায়ন করছে। সরকার এইচএসআর প্রকল্প নিয়ে দু’দেশের মধ্যে চুক্তিসহ নানান বিষয় নিয়ে ভাবছে। এক্ষেত্রে সিঙ্গাপুরের সঙ্গে আলোচনা করেই প্রকল্প পুনর্মূল্যায়ন করা হবে।

৬০ বিলিয়ন রিঙ্গিতের হাই স্পিড রেল প্রকল্পটি সাবেক প্রধানমন্ত্রী নাজিব তুন রাজাক প্রশাসনের সময় নেওয়া হয়েছিল। নির্বাচনে জেতার পর পাকাতান হারাপান জোট নেতা ও প্রধানমন্ত্রী ড. মাহাথির মোহাম্মদ ক্ষমতায় এসেই প্রকল্পটি পুনর্মূল্যায়ন শুরু করে দিয়েছেন।

নাজিব সরকারের বিরুদ্ধে মালয়েশিয়ার মেগা প্রকল্পগুলোর মাধ্যমে হাজার কোটি রিঙ্গিত দুর্নীতির অভিযোগ রয়েছে।

অর্থমন্ত্রী আজমিন জানিয়েছেন, ৫৫ বিলিয়ন রিঙ্গিতের অন্য আরেক মেগা প্রকল্প ‘ইসিআরএল’ যাচাই-বাছাই করা হচ্ছে।

তিনি বলেন, প্রকল্পের পুরো প্রভাব মূল্যায়নের প্রয়োজন রয়েছে। মাত্র ৩৫০ কিলোমিটার দূরত্বে জন্য ‘এইচএসআর’-এর মতো মেগা প্রজেক্ট দরকার আছে কিনা সেটা আমাদের দেখতে হবে। এছাড়া সিঙ্গাপুর-মালয়েশিয়ার মধ্যে যোগাযোগ স্থাপনের জন্য অন্য যোগাযোগ ব্যবস্থা নিশ্চিত করা যায় কিনা সেটিও অবশ্যই আমাদের পরীক্ষা করে দেখতে হবে।

আজমিন রোববার (২৭ মে) আল হাদিয়া মজসিদে ইফতার মাহফিলে অংশ নিয়ে এসব মন্তব্য করেন।

অন্য একটি প্রসঙ্গে তিনি বলেন, মধ্যমেয়াদী অর্থনৈতিক পর্যালোচনা আগামী সেপ্টেম্বরের আলোচনা টেবিলে তোলা হবে। এছাড়া পাকাতান হারাপান জোটের নির্বাচনী ইশতেহারে উল্লেখিত নতুন অর্থনৈতিক নির্দেশনাও চালু করা হবে। অর্থনৈতিক পরিকল্পনা ইউনিট ইতোমধ্যে কাজ শুরু করে দিয়েছে। আমরা পাকাতান হারাপানের ইশতেহার অনুযায়ী লক্ষ্য নির্ধারণ করতে চাই।

নাজিব রাজাকের সিরিজ অর্থ কেলেঙ্কারির কারণে গত ৯ মে মালয়েশিয়ার সাধারণ নির্বাচনে হেরে যায় রাজনৈতিক মোর্চা বারিসান নাশিওনাল। এই মোর্চার হয়েই আধুনিক ‍মালয়েশিয়ার জনক হয়েছেন মাহাথির মোহাম্মদ। 

দীর্ঘদিন শাসনের মধ্য দিয়ে দেশটিকে উন্নয়নের শিখরে পৌঁছে দিয়ে রাজনীতি থেকে স্বেচ্ছা সরে দাঁড়ান। ক্ষমতা দেন নাজিবের হাতে। কিন্তু অল্পদিনেই সীমাহীন দুর্নীতিতে জড়িয়ে পড়ার অভিযোগ ওঠে তার বিরুদ্ধে। এক সময়কার এই শীর্ষকে পদত্যাগ করার আহ্বান জানান মাহাথির। সেই আহ্বানে সাড়া না দেওয়ায় দীর্ঘদিনের বিরোধী জোট পাকাতান হারাপানের হয়েই প্রধানমন্ত্রী পদে ভোটযুদ্ধে নামের এশিয়ার আইকন। জয় পেয়ে আবার সরকার গঠন করেন মাহাথির।

নির্বাচনের জয়ের পরেই ‘দুর্নীতিবাজ নাজিবকে এবার কাঠগড়ায় নেবেন মাহাথির’ এমন ইঙ্গিত দিয়েছিলেন গণমাধ্যমকে। অবশ্য সে পথেই হাঁটছেন দেশটির উন্নয়নের এ নায়ক। কথার সঙ্গে কাজের মিল রাখতে শপথ নিয়েই ‘নাজিব ও তার স্ত্রীর দেশত্যাগে নিষেধাজ্ঞা’ দিয়েছে মাহাথির সরকার।

বাংলাদেশ সময়: ০২১০ ঘণ্টা, মে ২৮, ২০১৮
ইইউডি/এনএইচটি

সাভারে আ’লীগের দু’গ্রুপের সংঘর্ষ, আটক ৩
বরিশালে আ’লীগের মনোনয়ন চান ৮৬ কাউন্সিলর প্রার্থী
সিসিকে মেয়র পদে চারজনসহ ১৫৪ প্রার্থীর মনোনয়ন সংগ্রহ
অবশ্যই আমরা একসঙ্গে খেলতে পারি: দিবালা
প্রতিপক্ষের অস্ত্রের আঘাতে বৃদ্ধের কব্জি বিচ্ছিন্ন