Alexa

ঝুঁকিপূর্ণ এলাকা থেকে সরে যেতে খাগড়াছড়িতে মাইকিং

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

পাহাড়ি ঢলে ডুবে গেছে খাগড়াছড়ি। ছবি: বাংলানিউজ

খাগড়াছড়ি: খাগড়াছড়িতে ঝুঁকিপূর্ণ এলাকায় বসবাসরত বাসিন্দাদের সরে যেতে মাইকিং করেছে জেলা প্রশাসন ও পৌরসভা।

মঙ্গলবার (১২ জুন) দুপুর থেকে পৃথকভাবে এই মাইকিং করা হয়। এসময় ঝুঁকিপূর্ণ বাসিন্দাদের আশ্রয়কেন্দ্রগুলোতে যেতে বলা হয়। এর জন্য খাগড়াছড়ি পৌর শহরে আটটি আশ্রয় কেন্দ্র খোলা হয়েছে।

এতে জেলার মুসলিম পাড়া, শান্তিনগর, শব্দমিয়া পাড়া, বটতলী, কালাডেবার বন্যার্তরাসহ আশপাশের মানুষ আশ্রয় নিয়েছে।
 
খাগড়াছড়ি পৌর মেয়র রফিকুল আলম বাংলানিউজকে বলেন, পৌরসভার পক্ষ থেকে তিন হাজার জনকে খিচুরি এবং আরও তিন হাজার জনকে শুকনো খাবার দেওয়া হয়েছে।
 
খাগড়াছড়ি জেলা প্রশাসক রাশেদুল ইসলাম বাংলানিউজকে বলেন, শুধু খাগড়াছড়ি পৌর শহরে সাড়ে ৩০০ পরিবার পানি বন্দি হয়ে পড়েছেন। 

টানা বর্ষণে ও উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢলে ডুবে গেছে খাগড়াছড়ি। পানি উঠেছে খাগড়াছড়ির জেলার প্রধান শহর শাপলা চত্বরে। জেলায় নদনদীর পানি বিপদসীমার ওপর দিয়ে প্রভাহিত হচ্ছে।

এছাড়াও জেলার দীঘিনালা, মহালছড়ি, মানিকছড়ি, রামগড় উপজেলার নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে জনজীবন।

এর আগে সর্বশেষ ২০০৭ সালে এমন পরিস্থিতির মুখোমুখি হয়েছিল খাগড়াছড়িবাসী। 

বাংলাদেশ সময়: ২০১৫ ঘণ্টা, জুন ১২, ২০১৮
এডি/টিএ

কমিটি অনুমোদন নিয়ে ছাত্রলীগে ‘দ্বন্দ্ব’
সিলেটে ছাত্রদলের মিছিলে পুলিশের গুলি, আটক ১৮
ব্রেক্সিট: চূড়ান্ত গণভোটের দাবিতে লন্ডনে পদযাত্রা
চট্টগ্রামের সকল আসন উপহার দেওয়ার প্রতিশ্রুতি নাছিরের
গোয়ালন্দে যুবককে পিটিয়ে হত্যা