Alexa

বিনোদনের খোঁজে হাতিরঝিলে হাজারো দর্শনার্থী

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

হাতিরঝিলের পানিতে পর্যটকদের ঘোরাঘুরি/ছবি: শাকিল

ঢাকা: সকাল সাড়ে সাতটা থেকে রাজধানী হয়ে উঠেছিলো র‌্যালি, আর মিছিলের নগরী। মে দিবস উপলক্ষে বিভিন্ন দাবি-দাওয়া নিয়ে দুপুর পর্যন্ত রাজধানীর সড়কগুলোতে বিশেষ করে পল্টন-প্রেসক্লাব এলাকা ছিল মিছিল-সমাবেশে প্রাণবন্ত।

ছুটির দিনের পড়ন্ত বিকেলে এসে রাজধানীর মিছিলের সেই উত্তাপ ভুলে দর্শনার্থীরা উৎসবে মেতে ওঠে হাতিরঝিলে। মধুবাগ, রামপুরা, বাড্ডা, পুলিশ প্লাজা পয়েন্টে মানুষের ভিড় ছিল চোখে পড়ার মতো। শুধু ওভারব্রিজেই নয়, উৎসবপ্রেমীরা আনন্দে মেতে উঠতে দেখা গেছে ঝিলের পানিতেও। ওয়াটার ট্যাক্সি, ওয়াটার বোট আনন্দে যোগ করেছে নতুন মাত্রা। ওয়াটার ট্যাক্সিতে ভ্রমণের জন্য যাত্রীদের ছিল দীর্ঘ লাইন। 

হাতিরঝিলের ব্রিজে পর্যটকদের ঘোরাঘুরি/ছবি: শাকিলশিশু, তরুণ-তরুণী, কিশোর-কিশোরী, দম্পতিসহ নানা বয়সের মানুষের মিলনমেলায় পরিণত হয় হাতিরঝিল প্রাঙ্গণ। সন্তানদের নিয়ে আসেন অনেক মা-বাবা। কেউ বা আবার ঘুরে ঘুরে সেলফিও তোলেন। একসময় পুরো প্রকল্প এলাকা পরিণত হয় বিশাল জনসমাবেশে। 

হাতিরঝিলের পানিতে সূর্যাস্তসূর্য ডোবার শেষ মুহূর্তে সেতু ও উড়ালসড়ক এবং লেকের পাড়ে দাঁড়িয়ে হাজার হাজার মানুষ সৌন্দর্য উপভোগ করেন।

তীব্র গরম উপেক্ষা করে পরিবার নিয়ে ছুটির দিনে বেড়াতে এসেছেন মহাখালীর বাসিন্দা আরিফুর রহমান। তিনি বলেন, দুই সন্তানকে তেমন একটা  সময় দিতে পারি না। আজ মে দিবসের ছুটির ফাঁকে হাতিরঝিলে এলাম। প্যাডেলচালিত নৌকায় করে ওদের ঘুরিয়েছি। খুব আনন্দ পেয়েছে তারা।

তবে যারা মোটরসাইকেলে করে ঘুরতে এসেছেন তাদের কিছুটা বিড়ম্বনায়ও পড়তে হয়েছে। এফডিসি পয়েন্টে মুখোমুখি হতে হয়েছে চেকপোস্টের। যাদের কাগজপত্র ও হেলমেট ছিল তাদের রক্ষা হলেও বাকিদের দীর্ঘক্ষণ অপেক্ষা করা কিংবা মামলার মুখে পড়তে দেখা গেছে।

বাংলাদেশ সময়: ২০১৫ ঘণ্টা, মে ০১, ২০১৮
ইএস/এএ

নরসিংদীতে সড়ক দুর্ঘটনায় ১১জন নিহতের ঘটনায় তদন্ত কমিটি
কলঙ্কিত আরেক অধ্যায় ২১ আগস্ট
১৮০০ স্প্লিন্টার আঘাত করলেও আ’লীগ ছাড়েননি মাহবুবা
নরসিংদীতে বাস-লেগুনা সংঘর্ষে নিহত বেড়ে ১১
আওয়ামী লীগের সমাবেশে গ্রেনেড হামলা